Monday, May 10, 2021

How to add Facebook Comment on your Blogger Website?

How to add Facebook Comment on your Blogger Website

 ব্লগার ওয়েবসাইটের ভিতরে কীভাবে ফেসবুকের মন্তব্য বাক্স রাখবেন?

How to add Facebook Comment on your Blogger Website?


আপনার যদি কোন ব্লগার (Blogger.com) দ্বারা নির্মিত ব্লগ সাইট বা ওয়েবসাইট থাকে তবে তাতে আপনি তাকে একটি প্রফেশনাল ওয়েবসাইট এর মত ফেসবুক কমেন্ট বক্স যুক্ত করতে পারেন। 

ব্লগারের ডিফল্ট কমেন্ট বক্স দেখতে অনেকটা বিরক্তিকর। তাই আপনার ব্লগার সাইটে ফেসবুক কমেন্ট বক্স যুক্ত করলে আপনার সাইট টি দেখতে একদম প্রফেশনাল সাইট এর মত দেখাবে।

আপনার ব্লগার সাইটে ফেসবুক কমেন্ট বক্স যুক্ত করতে যা যা করতে হবে আমি নিচে তা স্টেপ বাই স্টেপ বর্ননা করছি।

ব্লগার সাইটে ফেসবুক কমেন্ট বক্স যুক্ত করতে হলে আপনাকে ব্লগার সাইটের থীম বা HTML Editor এ প্রবেশ করতে হবে। থীম এডিট করার পূর্বে অবশ্যই আপনার বর্তমান সাইটের থীম টি ব্যকআপ নিয়ে নিবেন। নতুবা এডিট করতে কোথাও ভুল হলে আপনার সাইটের সমস্যা হতে পারে।

কিভাবে ব্লগার সাইটের থীম ব্যাকআপ নিতে হয় তা জানতে নিচের লিংক থেকে ঘুরে আসতে পারেন।

  • আপনার ব্লগার সাইটে লগ ইন করুন (Sign in to Blogger.com)
  • বাম পাশে নিচে থীম এ ক্লিক করুন (Click on Theme from left lower side)
How to add Facebook Comment on your Blogger Website


  • কাস্টমাইজেশন থেকে এডিট ইন এইচ.টি.এম.এল এ ক্লিক করুন (Click in Edit in HTML from Customization)
How to add Facebook Comment on your Blogger Website


  • এডিট ইন এইচ.টি.এম.এল এ ক্লিক করলে থীম টি এইচ.টি.এম.এল মোড এ ওপেন হবে। এখন এইচ.টি.এম.এল এর যেকোন জায়গায় ক্লিক করুন এবং কিবোর্ড থেকে ctrl + f  চাপুন। এখন সার্চ বক্স খোলবে এবং এর ভিতরে </body> ট্যাগ টি সার্চ করুন।
  • একবার </body> ট্যাগটি পাওয়া গেলে নীচের কোডটি  </body> ট্যাগের উপরে পেস্ট করুন ।
<div id="fb-root"></div>
<script>(function(d, s, id) {
var js, fjs = d.getElementsByTagName(s)[0];
if (d.getElementById(id)) return;
js = d.createElement(s); js.id = id;
js.src = "//connect.facebook.net/en_US/sdk.js#xfbml=1&amp;version=v2.3";
fjs.parentNode.insertBefore(js, fjs);
}(document, 'script', 'facebook-jssdk'));</script>

 

  • এখন নিচে প্রদত্ত ট্যাগটি সার্চ করুন (আপনি যখন এই ট্যাগটি সার্চ করবেন তখন মনে রাখবেন, দুটি অনুরূপ ট্যাগ পাবেন, উভয়ই একই রকম হবে, আপনাকে প্রথম ট্যাগটি ছেড়ে দ্বিতীয় ট্যাগটিতে থাকতে হবে))

<b:include data='post' name='post'/>

  • এখন আপনাকে নীচে দেওয়া কোডটি কপি করতে হবে এবং <b:include data='post' name='post'/>"  ট্যাগের পরে পেস্ট করতে হবে।

<b:if cond='data:blog.pageType == "item"'>

&lt;div

class=&quot;fb-comments&quot;

data-href=&quot;<data:post.url/>&quot;

data-width=&quot;600&quot;

data-num-posts=&quot;100&quot;&gt;

&lt;/div&gt;

</b:if>

  • এইচ.টি.এম.এল এর ভিতরে উভয় কোড পেস্ট করার পরে, "থিমটি Save করুন" থিমটি Save করার পরে, ফেসবুক কমেন্ট বক্সটি  আপনার ব্লগার ওয়েবসাইটে সক্রিয় হবে।

সুতরাং এইভাবে আপনি আপনার ব্লগার ওয়েবসাইটের ভিতরে ফেসবুক কমেন্ট বক্স যুক্ত করতে পারেন।

  • ও হ্যা আপনার ব্লগার সাইটের সেটিংস থেকে ডিফল্ট ব্লগার কমেন্টস Hide kore দিন।

How to add Facebook Comment on your Blogger Website



এইতো আপনার প্রফেশনাল মানের সাইট তৈরি।


এই পোস্ট এর একটি নমুনা নিচে দেওয়া হলঃ

How to add Facebook Comment on your Blogger Website





Monday, March 15, 2021

Sirajgonj Tour । সিরাজগঞ্জ ভ্রমন

 Sirajgonj Tour । সিরাজগঞ্জ ভ্রমন

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar



Sumon-Sutradhar






Sumon-Sutradhar



Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar


Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Sumon-Sutradhar

Saturday, July 25, 2020

Photo Session at Gardenia Wears Ltd.


Photo Session at Gardenia Wears Ltd.

অনেক দিন যাবৎ নিজের কোন ছবি তোলা হয় না। গত 10-07-20 ইং তারিখে (গার্ডেনিয়া ওয়্যারস্ লিঃ - Gardenia Wears Ltd.) এর ছাদে তোলা কিছু ছবি শেয়ার করলাম।


নিছের গুলো 11-07-2020 ইং তারিখে বৃষ্টির পর ফ্যাক্টরীর ভিতরে বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি হলে তখন তোলা কিছু মূহুর্ত। 

সকল ছবি তোলেছেনঃ মোঃ মনিরুল ইসলাম


















ব্যাকুলতা

ব্যকুলতা-Sumon-Sutradhar


ব্যাকুলতা 

--- Sumon Sutradhar ----


কখনো কি ভেবেছিলে তোমাকে আবার 
আগের মত করেই চাইব? 

ভেবেছিলে কি এতগুলো বছর পর
তোমার একটুখানি ভালবাসার জন্য 
আবারো ব্যাকুল হব?

ভালবাসার প্রথম প্রহরগুলোর মত কত স্মৃতি 
এই শ্রাবনের বৃষ্টির মত
ভিজিয়ে যায় প্রতিনিয়ত। 

তুমি জানো কি, এখনো তোমায় 
এক নজর দেখার জন্য ব্যাকুল থাকি।
জানো কি, মাঝে মাঝে ইন্টারনেটে 
হন্যে হয়ে খুজে ফিরি তোমাকে
একটু চোখ জোড়াব বলে।

তুমি জানো কি এখনো মাঝে মাঝে 
জ্বরে যখন বিছানা জড়িয়ে থাকি
তোমাকেই বেশি অনুভব করি
আমার মাথার পাশে;
যেন মাথায় হাত বুলিয়ে দাও সারাক্ষণ।


Monday, June 15, 2020

Bangabondhu Sheikh Mujib Safari Park-Gazipur ভ্রমন

Bangabonddhu-Safari-Park-Gazipur


Bangabondhu Sheikh Mujib Safari Park (বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্ক)- গাজীপুর জেলার সদর উপজেলার পিরুজালী ইউনিয়নের পিরুজালী মৌজা এবং  শ্রীপুর উপজেলার মাওনা ইউনিয়ন এর রাথুরা মৌজার খন্ড খন্ড শালবনের প্রায় 5000 একর নিয়ে বিস্তৃত। যদিও মাস্টারপ্ল্যানে 3800 একর আওতাভুক্ত করা হয়েছে।
এই প্রকল্পটি 2010 অনুমোদন পায় এবং 2011 সাল থেকে Bangabondhu Sheikh Mujib Safari Park এর নির্মাণকাজ আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয়। এটি ছোট বড় বিভিন্ন জীবজন্তর নিরাপদ আশ্রয়স্থল হিসেবে পরিচিত।
Bangabondhu Sheikh Mujib Safari Park টি দক্ষিণ এশীয় মডেল বিশেষ করে থাইল্যান্ডের সাফারী ওয়ার্ল্ড এর সাথে সামঞ্জস্য রেখে স্থাপন করা হয়েছে। এছাড়াও ইন্দোনেশিয়ার বালি সাফারী পার্কের কতিপয় ধারনা সন্নিবেশিত করা হয়েছে।

Bangabondhu Sheikh Mujib Safari Park এ পর্যকটদের জন্য উপভোগ্যঃ

  • তথ্য ও শিক্ষা কেন্দ্রে ভিডিও ব্রিফিং/প্রামাণ্য চিত্রের মাধ্যমে সাফারী পার্ক সম্পর্কে সাম্যক ধারণা নিতে পারেন।
  • ন্যাচারেল হিস্ট্রি মিউজিয়ামে বন্যপ্রাণী ও উদ্ভিদ প্রজাতি বৈচিত্র্য সম্পর্কে ছাত্র-ছাত্রী ও গবেষকগণ পরিচিতি লাভ করতে পারেন।
  • প্রটেকটেট মিনিবাসে চড়ে প্রাকৃতিক পরিবেশে বিচারণরত বাঘ, সিংহ, হাতী, সাম্বার, মায়া হরিণ, চিত্রা হরিণ, বানর, হনুমান, ভল্লুক, গয়াল, কুমির ও বিচিত্র পাখী দেখাতে পাবেন।
  • লেকের ধারে দেখতে পাবেন অসংখ্য অতিথি ও জলজ পাখী।
  • পর্যবেক্ষণ টাওয়ারে উঠে বনাঞ্চলের নয়নাভিরাম সৌন্দর্য ও বন্যপ্রাণী অবলোকন করতে পারবেন।
  • পাখীশালায় দেখতে পাবেন দেশী-বিদেশী অসংখ্য পাখী।
  • এছাড়া বেস্টনীতে বিরল প্রজাতির প্যারা হরিণ।
  • রাত্রি যাপনের জন্য রাখছে বিশ্রামাগার।
Bangabondhu Sheikh Mujib Safari Park এ যেভাবে যাবেনঃ
বাস সার্ভিস : ঢাকা থেকে ময়মনসিংহ যাওয়ার পথে গাজীপুর এর বাঘেরবাজার নামক স্থান হইতে সাফারী পার্কে রিক্সা , অটো বা সিএনজি করে যেতে হয়। প্রধান সড়ক হতে পূর্ব পার্শ্বে পার্কের অবস্থান।

সাফারী পার্ক পরিদর্শন/প্রবেশ ফিঃ

  1. পর্যটকগণ নির্ধারিত ফি প্রদানের মাধ্যমে সাফারী পার্ক পরিদর্শন করতে পারবেন। সরকার কর্তৃক ধার্যকৃত ফি নিম্নরূপ
  2. প্রাপ্ত বয়স্ক : ৫০/-
  3. ছাত্র/ছাত্রী :২০/-
  4. শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে শিক্ষা সফরে আগত শিক্ষার্থী গ্র“প (৪০-১০০ জন) :৪০০/-
  5. শিক্ষা প্রতিষ্ঠা থেকে আগত শিক্ষার্থী গ্র“প (১০০-২০০ জনের উর্ধে) : ৮০০/-
  6. বিদেশী পর্যটক : ৫ ইউ, এস ডলার বা সম পরিমাণে বাংলাদেশী টাকা

Thursday, May 28, 2020

Dream Holiday Park - ড্রিম হলিডে পার্ক

Dream Holiday Park - Narsingdi

আনন্দময় অবকাশযাপনের জন্য ড্রিম হলিডে পার্ক অনন্য। এ পার্কটির অবস্থান নরসিংদীর পাঁচদোনার চৈতাবাতে । ঢাকা-সিলেট হাইওয়ের পাশেই এর অবস্থান। এই পার্কটি ৩ বিঘা জমির উপর নির্মিত, ড্রিম হলিডে পার্কটি বিনোদনপিপাসুদের জন্য ৩১ আগস্ট, ২০১১ উন্মুক্ত করা হয়েছিল। 

এখানে রয়েছে বিশাল গাড়ী পার্কিংয়ের জায়গা, থাকার জন্য বাংলো এবং কুটির, ভারতীয় ও চীনা খাবারের জন্য আন্তর্জাতিক মানের রেস্তোঁরা, কফি-হাউস, আইসক্রিম পার্লার, সুস্বাদু ফাস্টফুড, সরকারী সুরক্ষা (আনসার), তাৎক্ষনিক  বিদ্যুত সরবরাহ, প্রার্থনার ঘর (মসজিদ) ইত্যাদি।

অবকাশযাপনের জন্য শিশু এবং প্রাপ্তবয়স্ক উভয়ের জন্য ড্রিম হলিডে পার্কটি উৎকৃষ্ট। ড্রিম হলিডে পার্ক পিকনিকের জন্য একটি দুর্দান্ত জায়গা। পিকনিক সুবিধাগুলির মধ্যে রয়েছে সাজসজ্জার পুরো প্যাকেজ, পর্যাপ্ত সংখ্যক হাইজেনিক টয়লেট/ওয়াশরুম, বিশেষ Shade, সাউন্ড সিস্টেম (প্রিপেইড),  সমস্ত রাইড প্রিপেইড।

দুটি পিকনিক স্পট রয়েছে- (১) মায়াবী পিকনিক স্পটের জন্য বাংলো (২ এ / সি রুম) এবং (২) মাধুরীমা পিকনিক স্পটের জন্য বাংলো - স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় এবং পরিবার একসাথে এবং পিকনিকের জন্য।

শিশুদের জন্য এটি বেশ জনপ্রিয় । আছে কিছু রাউড এর মধ্যে হচ্ছে নাগাট ক্যাসল, স্পিনিং ক্যাসল, রকিং হর্স, ড্রিম প্লে হাউজ, চাইল্ড ক্যাসল, চাইল্ড প্লে গ্রাউন্ড, সুইং চেয়ার লাফিং ক্রাউন্ড বাম্পার কার উল্যেখযোগ্য । কচিকাচা শিশুরা এখানে আনন্দে মেতে উঠে । ভূতের বাড়িতে রয়েছে ভৌতিক আয়োজন । বুলেট ট্রেনে রুমাঞ্ছকর সময় কাটে । এয়ার বাইসাইকেলে উরা যায় আকাশে । এ রাইড ড্রিম হলিডে প্রথম বাংলাদেশে চালু করেছে । 

জলের উপর পার্কের ক্রিয়াকলাপগুলির মধ্যে রয়েছে: জেট ফাইটিং, স্পিড বোটিং, রাজহাঁস নৌকা বাইচ, বেঙ্গল ব্রিজের নীচে নৌকা চালানো, সিডনি ব্রিজ এবং লন্ডন ব্রিজ। এ পার্কে কুমিরের একটি ভাস্কর্য ওয়াটার ফাউন্টেন সহ আরও কিছু আয়োজন ।

লেকের দৃশ্য এর পরে বসে সবুজ ঘাসের মনোরম পরিবেশ কাটিয়ে দিতে পারেন বিকেল । এছাড়া স্পিড বোটে একটি চক্কর দিতে পারেন । আরেকটি কথা মনে করিয়ে দেই খালের পারে বিরাট সাপ, কচ্ছপ, সিংহ,হরিণ (যদিও সব কিছুই কৃত্রিম।

বাচ্চাদের জন্য চৈতাবা রেলওয়ে স্টেশনে যেতে এবং এয়ারে সুইং চেয়ার, বুল রাইড এবং গর্জিলা এবং ট্রেন রয়েছে।

ভ্যাট সহ এন্ট্রি টিকিটের দাম 200 টাকা।

ড্রীম হলিডে পার্ক এ বুকিং দিতে ও বিস্তারিত জানতে কল করুন:
01762-696302,
01762-696303,
01762-696304,
01762-696305,
01762-696306.
অথবা ঘুড়ে আসতে পারেন তাদের ফেসবুক পেইজ এঃ

Tuesday, April 14, 2020

ন্যাড়া কথন


ন্যাড়া কথন

প্রারম্ভিকাঃ 

”নাপিতের বুদ্ধি সাত ছলা” ব্রাহ্মণবাড়িয়ার একটি প্রচলিত প্রবাদ যার অর্থ হল “নাপিত বা নরসুন্দরের বুদ্ধি হল সাত বস্তা পরিমাণ / শেয়ালের বুদ্ধির মত” তারা আপনাকে তাদের তিক্ষ্ন বুদ্ধি দিয়ে কখন যে বোকা বানিয়ে দিবে আপনি তা বুজতেই পারবেন না।

তেমনি জনৈক কোন এক নাপিত নাকি করোনা ভাইরাস উড়ে এসে মাথার চুলে বসে বলে প্রচার করায় বগুড়াতে অনেকেই নাকি ন্যাড়া করে ফেলেছে এবং ফেসবুকে ছবি আপলোড করেছে।এই বিষয়ে একটি জাতীয় দৈনিক এও খবর প্রকাশিত হয়। -- “বগুড়ায় করোনা থেকে রক্ষা পেতে বাড়িতে থাকা মানুষের মাথা ন্যাড়া করার হিড়িক।”

গত কিছুদিন আগে 71 টিভির একটি প্রোগ্রামে “হ্যালো একাত্তর” এ কুমিল্লা থেকে শাফায়েত নামের এক লোক টেলিফোন করে প্রশ্ন করেন যে, তাদের এলাকায় নাকি সবাই মাথা ন্যাড়া করে ফেলতেছেন কারন করোনা থেকে মুক্তির জন্য। উনার প্রশ্ন হল করোনায় তাপমাত্রার প্রভাব নিয়ে। করোনা নাকি কম তাপমাত্রায় বিস্তার বেশি করে। তাই সে যেহেতু ন্যাড়া করেছেন মাথা ঠান্ডা থাকে এর ফলে করোনার ঝুকিঁ কি বেড়ে যাবে কিনা?

কতটা আবাল হইলে এইরকম প্রশ্ন মাথায় আসে? আবার সে নাকি কোন ভার্সি টির ছাত্র  !!!!!!!!!!!!!!!

আসলে বাঙালী জাতি হল হুজুগে জাতি। গুজব নিয়ে মেতে থাকতে পচন্দ বেশি করে।



কিছুদিন আগেও বেশ কিছু গুজব নিয়ে মেতে ছিল,


  1. থানকুনি পাতায় করোনার  ‍মুক্তিঃ
  2. কোন নবজাতকের দৈববানী ছিল কালিজিড়া দিয়ে রং চা খেলে করোনা হবে না ইত্যাদি ইত্যাদি…………



 ফেসবুক ফটো ক্যাপসনঃ

আসুন কিছু ন্যাড়া মাথার ফেবু ক্যাপসন দেখে নেই;


  • -- ”টাক-ডাউন”
  • -- ”ন্যাড়া হলাম”-- 
  • “Today @home.. with Dada…. Helped each other to look like this………”
  • -- “ছোট্ট বেলায় আম্মু যখন ন্যাড়া করতে চাইতো অনেক রকম বাহানা করতাম। আম্মু তা পূরণ করে ন্যাড়া করতে হতো।আজ হঠাৎ আমার নিজ উদ্যোগে ন্যাড়া……”
  • -- ”কত বছর আগে ন্যাড়া হয়েছি সঠিক মনে নেই, তবে আজ আবার ন্যাড়া হলাম।”
  • -- ” অসৎ ব্যক্তি সৎ ব্যক্তির কাজের মধ্যে কোন মহৎ উদ্যেশ্য খুঁজে পায় না।। ন্যাড়া কোম্পানীর সভাপতি নির্বাচিত হলাম।”
  • -- ”সবাই যখন ন্যাড়া হয় তখন আমিও আর বাদ যাই বা কি করে তাই আমিও ন্যাড়া হলাম”
  • -- ”তোমরা দাঁত কেলিয়ে নাও শেষে আমিও ন্যাড়া হলাম”
  • -- ”করোনা ভাইরাসের কারনে ঢাকা সসব সেলুন লক ডাউন। তখন আর কি করা বাধ্য হয়ে ন্যাড়া হলাম। এখন শুধু মনে হচ্ছে কি যেন হারালাম। শুধু আমি নয় আরও অনেকেই বাধ্য………………………”
  • -- ”গুজব উঠেছে ন্যাড়া করলে নাকি করোনা হয় না। বাকিটা ইতিহাস।:p :p :p “
  • -- “ তিন ভাই এক সাথে জাতীয় ন্যাড়া কমিটির সদস্য হলাম। সকলের নিকট দোয়া প্রার্থী”
  • -- ” মাথা ন্যাড়া করলে মস্তিস্কের জন্য অনেক উপকারী দিক আছে। আপনার চুল পড়া বা অন্যান্য সমস্যা না থাকলেও আপনি মাথা ন্যাড়া করতে পারেন। বিশেষজ্ঞদের মতে প্রথমত মাথা ন্যাড়া………………..”
  • -- “শেষ পর্যন্ত বাধ্য হলাম,করোনা ন্যাড়া ফ্যাশন :pবহু প্রতীক্ষিত ছবি  :’(যেটা দেখার অপেক্ষায় ছিল অনেকে :P ………….”
  • -- ”হালকা ন্যাড়া হলাম”
  • -- ”করোনা কাটিং !    শেষ কবে মাথা ন্যাড়া করে ছিলাম মনে নেই। করোনার কারনে যেহেতু ন্যাড়া হলাম……………..”
  • -- ” আমাদের গাজীপুরে লক ডাউন চলছে তাই বেশ কদিন হোম কোয়ারান্টাইন আছি এবং থাকতে হবে। তাই সুযোগটি কাজে লাগিয়ে ন্যাড়া হলাম। নিজে সচেতন হউন অন্যকে সচেতন করুন। ”
  • -- ”প্রথম, দ্বিতীয় শ্রেণীর পর অনার্স থার্ড ইয়ারে ন্যাড়া হলাম!”
  • -- ”25 বছর আগে মা-বাবা দৌড়াই এনে ন্যাড়া করত। আজ নিজে ন্যাড়া হলাম।”
  • -- ”এই প্রথম ন্যাড়া হলাম…………”
  • -- ”দেখি সবাই ন্যাড়া হয়ে, ফেসবুকে পোষট করে। তাই মুই আর মামু ন্যাড়া হলাম।”
  • -- ”নাপিত না পাওয়ার কারনে ন্যাড়া হলাম”-- ”শেষ পর্যন্ত আমিও ন্যাড়া হলাম।”
  • -- ”ন্যাড়া হয়ে অনেকটা হালকা হলাম!বিঃ দ্রঃ ছবি চেয়ে লজ্জা দিবেন না।। অবশেষে বন্ধুদের আবদার রাখতে।”
  • -- ”আমিও ন্যাড়া হলাম……রোদের উত্তাপও বাড়লো।”
  • -- ”নয় বছর পর ন্যাড়া হলাম।”
  • -- ”10 বছর পরে আবার ন্যাড়া হলাম। মেয়েদের জ্বালায় থাকতে পারতেছি না এবার খুশিতো মেয়েরা।”
  • -- ”হোম কোয়ারেটেনে থাকার সহজ উপায়।”

 পরশিষ্টঃ

অতপর, সবার উদ্দ্যেশে একটি কথাই বলতে চাই, গুজবে কান দিবেন না। প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন।



বাড়িতে থাকুন। ভাল থাকুন।

#StayHome #StaySafe


স্ক্রীনশটঃ

আসুন এবার কিছু স্ক্রীনশট দেখে আসি। ফেসবুক থেকে স্ক্রীনশট নেয়া। এখানে আমার ফ্রেন্ডলিস্টেরও কেউ কেউ আছে। (সরি ফর পাব্লিশিং ইউর পিকচার উইদআউট ইউর ইনফরমেশন)।

যদিও কারো নাম উল্লেখ করা হয়নি (ব্লার করে দিয়েছি)